ইবরানী 1

1অনেক দিন আগে নবীদের মধ্য দিয়ে ঈশ্বর আমাদের পূর্বপুরুষদের কাছে নানা ভাবে অনেক বার অল্প অল্প করে কথা বলেছিলেন। 2কিন্তু এই দিনগুলোর শেষে তিনি তাঁর পুত্রের মধ্য দিয়ে আমাদের কাছে কথা বলেছেন। ঈশ্বর তাঁর পুত্রকে সব কিছুর অধিকারী হওয়ার জন্য নিযুক্ত করলেন। পুত্রের মধ্য দিয়েই তিনি সব কিছু সৃষ্টি করলেন। 3ঈশ্বরের সব গুণ সেই পুত্রের মধ্যেই রয়েছে; পুত্রই ঈশ্বরের পূর্ণ ছবি। পুত্র তাঁর শক্তিশালী বাক্যের দ্বারা সব কিছু ধরে রেখে পরিচালনা করেন। মানুষের পাপ দূর করবার পরে পুত্র স্বর্গে মহান ঈশ্বরের ডান পাশে বসলেন। 4তাঁর পিতার কাছ থেকে তিনি যে নাম পেয়েছেন তা যেমন স্বর্গদূতদের নামের চেয়ে মহান, তেমনি তিনি নিজেও স্বর্গদূতদের চেয়ে অনেক মহান হয়েছেন। 5ঈশ্বর কখনও কি কোন স্বর্গদূতকে এই কথা বলেছেন, “তুমি আমার পুত্র, আজই আমি তোমার পিতা হলাম”? আবার তিনি কি বলেছেন, “আমি হব তার পিতা আর সে হবে আমার পুত্র”? 6না, তিনি তা বলেন নি। ঈশ্বর তাঁর প্রধান সন্তানকে এই জগতে পাঠাবার সময় বলছেন, “ঈশ্বরের সব দূতেরা তাঁকে ঈশ্বরের সম্মান দিয়ে প্রণাম করুক।” 7স্বর্গদূতদের বিষয়ে ঈশ্বর বলছেন, “তিনি বাতাসকে তাঁর দূত করেছেন; জ্বলন্ত আগুনকে করেছেন তাঁর দাস।” 8কিন্তু পুত্রের বিষয়ে ঈশ্বর বলছেন, “হে ঈশ্বর, তোমার সিংহাসন চিরস্থায়ী; তোমার শাসন ন্যায়ের শাসন। 9তুমি ন্যায় ভালবাস আর অন্যায়কে ঘৃণা কর; সেইজন্য ঈশ্বর, তোমার ঈশ্বর, তোমার সংগীদের চেয়ে অনেক বেশী আনন্দ তেলের মত করে তোমার উপর ঢেলে দিয়েছেন।” 10ঈশ্বর আরও বলেছেন, “প্রভু, তুমি অনেক কাল আগেই পৃথিবীর ভিত্তি গেঁথেছিলে; মহাকাশও তোমার হাতে গড়া। 11সেগুলো ধ্বংস হয়ে যাবে, কিন্তু তুমি চিরকাল থাকবে। কাপড়ের মতই সেগুলো পুরানো হয়ে যাবে। 12সেগুলোকে তুমি কাপড়ের মতই গুটিয়ে রাখবে, আর কাপড়ের মত সেগুলোকে বদল করা হবে। কিন্তু তুমি একই রকম থাকবে, আর তোমার জীবনকাল কখনও শেষ হবে না।” 13ঈশ্বর কখনও কি কোন স্বর্গদূতকে এই কথা বলেছেন, “যতক্ষণ না আমি তোমার শত্রুদের তোমার পায়ের তলায় রাখি, ততক্ষণ তুমি আমার ডানদিকে বস”? 14স্বর্গদূতেরা কি সকলেই সেবাকারী আত্মা নন? যারা পাপ থেকে উদ্ধার পাবে তাদের সেবা করবার জন্যই তো তাঁদের পাঠানো হয়।

will be added

X\