Ezra 10

1ইষ্রা যখন ঈশ্বরের ঘরের সামনে উবুড় হয়ে প্রার্থনা ও পাপ স্বীকার করছিলেন ও কাঁদছিলেন তখন ইস্রায়েলীয়দের পুরুষ, স্ত্রীলোক ও ছেলেমেয়ের একটা মস্ত বড় দল তাঁর কাছে জড়ো হয়েছিল। তারাও খুব কাঁদছিল। 2তখন এলমের এক বংশধর যিহীয়েলের ছেলে শখনিয় ইষ্রাকে বললেন, “আমাদের দেশে বাসকারী অন্যান্য জাতির মেয়েদের বিয়ে করে আমরা আমাদের ঈশ্বরের কাছে অবিশ্বস্ত হয়েছি; কিন্তু তা হলেও ইস্রায়েলীয়দের এখনও আশা আছে। 3এখন আসুন, আমাদের ঈশ্বরের সামনে আমরা এই প্রতিজ্ঞা করি যে, আমার কর্তা আপনার পরামর্শ অনুসারে ও আমাদের ঈশ্বরের আদেশকে যাঁরা ভয় করেন তাঁদের পরামর্শ অনুসারে আমরা এই সমস্ত স্ত্রীদের ও তাদের ছেলেমেয়েদের ত্যাগ করব। আইন-কানুন অনুসারেই তা করা হোক। 4আপনি উঠুন; এই বিষয় নিয়ে কাজ করা তো আপনারই দায়িত্ব। আমরা আপনাকে সাহায্য করব, কাজেই আপনি সাহসী হয়ে কাজ করুন।” 5তখন ইষ্রা উঠলেন এবং সেই কথা অনুসারে কাজ করবার জন্য প্রধান পুরোহিতদের, লেবীয়দের ও সেখানে একত্র হওয়া ইস্রায়েলীয়দের শপথ করালেন। তারা সবাই শপথ করল। 6তারপর ইষ্রা ঈশ্বরের ঘরের সামনে থেকে ইলীয়াশীবের ছেলে যিহোহাননের কামরায় গেলেন। তিনি সেখানে খাবার বা জল কিছুই খেলেন না, কারণ বন্দীদশা থেকে ফিরে আসা লোকদের অবিশ্বস্ততার জন্য তিনি শোক করছিলেন। 7বন্দীদশা থেকে ফিরে আসা সমস্ত লোকেরা যাতে যিরূশালেমে এসে জড়ো হয় সেইজন্য যিহূদা ও যিরূশালেমের সব জায়গায় একটা ঘোষণা দেওয়া হল। 8যে কেউ তিন দিনের মধ্যে উপস্থিত হবে না, উঁচু পদের কর্মচারী ও বৃদ্ধ নেতাদের পরামর্শ অনুসারে তার সমস্ত সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হবে এবং বন্দীদশা থেকে ফিরে আসা লোকদের সমাজ থেকে তাকে বের করে দেওয়া হবে। 9তিন দিনের মধ্যে যিহূদা ও বিন্যামীন এলাকার সমস্ত লোক যিরূশালেমে জড়ো হল। নবম মাসের বিশ দিনের দিন সমস্ত লোক ঈশ্বরের ঘরের সামনের চকে বসে সেই ব্যাপারের জন্য ও ভীষণ বৃষ্টির জন্য কাঁপছিল। 10তখন পুরোহিত ইষ্রা উঠে দাঁড়িয়ে তাঁদের বললেন, “আপনারা অবিশ্বস্ত হয়েছেন, অন্যান্য জাতির মেয়েদের বিয়ে করে আপনারা ইস্রায়েলীয়দের পাপের সংগে আরও পাপ যোগ করেছেন। 11এখন আপনারা আপনাদের পূর্বপুরুষদের ঈশ্বর সদাপ্রভুর কাছে পাপ স্বীকার করে তাঁর ইচ্ছামত কাজ করুন। আপনাদের দেশে বাসকারী লোকদের ও অন্যান্য জাতির স্ত্রীদের থেকে নিজেদের আলাদা করুন।” 12তখন সমস্ত লোক খুব জোরে বলল, “আপনি ঠিক কথা বলেছেন; আপনি যেমন বলেছেন তেমনই আমাদের করতে হবে। 13কিন্তু লোক অনেক আর এখন খুব বৃষ্টি পড়ছে, কাজেই আমরা বাইরে দাঁড়িয়ে থাকতে পারছি না। তা ছাড়া এই বিষয়ের মীমাংসা এক বা দুই দিনের মধ্যে হতে পারে না, কারণ আমরা অনেকেই এই পাপ করেছি। 14আমাদের উঁচু পদের কর্মচারীরাই যেন গোটা সমাজের প্রতিনিধি হন। তারপর আমাদের বিভিন্ন গ্রাম ও শহরের মধ্যে যারা অন্যান্য জাতির মেয়েদের বিয়ে করেছে তারা প্রত্যেকে তাদের বৃদ্ধ নেতাদের ও বিচারকদের নিয়ে একটা নির্দিষ্ট সময়ে যিরূশালেমে আসুক। তাতে এই পাপের জন্য আমাদের ঈশ্বরের ভয়ংকর ক্রোধ আমাদের কাছ থেকে চলে যাবে।” 15এই কথার বিরুদ্ধে দাঁড়াল কেবল অসাহেলের ছেলে যোনাথন ও তিক্‌বের ছেলে যহসিয়; তাদের পক্ষে ছিল মশুল্লম ও লেবীয় শব্বথয়। 16বন্দীদশা থেকে ফিরে আসা লোকেরা সেই কথামত কাজ করল। পুরোহিত ইষ্রা প্রত্যেক বংশ থেকে নেতা বেছে নিলেন। দশম মাসের প্রথম দিনে তাঁরা সেই বিষয়ের তদন্ত করবার জন্য বসলেন। 17যারা অন্যান্য জাতির মেয়েদের বিয়ে করেছিল তাদের সকলের তদন্তের কাজ তাঁরা পরের বছরের প্রথম মাসের প্রথম দিনে শেষ করলেন। 18যারা অন্যান্য জাতির মেয়েদের বিয়ে করেছিল তাদের তালিকা এই: পুরোহিতদের মধ্যে যোষাদকের ছেলে যেশূয়ের ও তার ভাইদের বংশধরদের মধ্যে মাসেয়, ইলীয়েষর, যারিব ও গদলিয়। 19এরা সবাই নিজের নিজের স্ত্রী ত্যাগ করবে বলে প্রতিজ্ঞা করল এবং তাদের দোষের জন্য তারা প্রত্যেকে পাল থেকে একটা করে ভেড়া নিয়ে দোষ উৎসর্গের অনুষ্ঠান করল। 20ইম্মেরের বংশধরদের মধ্যে হনানি ও সবদিয়। 21হারীমের বংশধরদের মধ্যে মাসেয়, এলিয়, শময়িয়, যিহীয়েল ও উষিয়। 22পশহূরের বংশধরদের মধ্যে ইলীয়ৈনয়, মাসেয়, ইশ্মায়েল, নথনেল, যোষাবদ ও ইলিয়াসা। 23লেবীয়দের মধ্যে যোষাবদ, শিমিয়ি, কলায়, অর্থাৎ কলীট, পথাহিয়, যিহূদা ও ইলিয়েষর। 24গায়কদের মধ্যে ইলীয়াশীব। রক্ষীদের মধ্যে শল্লুম, টেলম ও ঊরি। 25অন্যান্য ইস্রায়েলীয়দের মধ্যে- পরিয়োশের বংশধরদের মধ্যে রমিয়, যিষিয়, মল্কিয়, মিয়ামীন, ইলিয়াসর, মল্কিয় ও বনায়। 26এলমের বংশধরদের মধ্যে মত্তনিয়, সখরিয়, যিহীয়েল, অব্দি, যিরেমোৎ ও এলিয়। 27সত্তূর বংশধরদের মধ্যে ইলিয়ৈনয়, ইলিয়াশীব, মত্তনিয়, যিরেমোৎ, সাবদ ও অসীসা। 28বেবয়ের বংশধরদের মধ্যে যিহোহানন, হনানিয়, সব্বয় ও অৎলয়। 29বানির বংশধরদের মধ্যে মশুল্লম, মল্লূক, অদায়া, যাশূব, শাল ও যিরমোৎ। 30পহৎ-মোয়াবের বংশধরদের মধ্যে অদ্‌ন, কলাল, বনায়, মাসেয়, মত্তনিয়, বৎসলেল, বিন্নূয়ী ও মনঃশি। 31হারীমের বংশধরদের মধ্যে ইলিয়েষর, যিশিয়, মল্কিয়, শময়িয়, শিমিয়োন, 32বিন্যামীন, মল্লূক ও শমরিয়। 33হশূমের বংশধরদের মধ্যে মত্তনয়, মত্তত্ত, সাবদ, ইলীফেলট, যিরেময়, মনঃশি ও শিমিয়ি। 34বানির বংশধরদের মধ্যে মাদয়, অম্রাম, ঊয়েল, 35বনায়, বেদিয়া, কলূহূ, বনিয়, মরেমোৎ, ইলিয়াশীব, মত্তনিয়, মত্তনয়, যাসয়, 38বানি, বিন্নূয়ী, শিমিয়ি, শেলিমিয়, নাথন, অদায়া, মকদ্‌বয়, শাশয়, শারয়, 41অসরেল, শেলিমিয়, শমরিয়, শল্লুম, অমরিয় ও যোষেফ। নবোর বংশধরদের মধ্যে: যিয়ীয়েল, মত্তিথিয়, সাবদ, সবীনঃ, যাদয়, যোয়েল ও বনায়। 44এরা সবাই অন্যান্য জাতির মেয়েদের বিয়ে করেছিল এবং কোন কোন স্ত্রীর গর্ভের ছেলেমেয়েও ছিল।

will be added

X\